রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১২:১৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক বাতেনের অপসারণ দাবিতে আবারও আন্দোলন ২০ হাজার টাকা বেতনে চালডালে চাকরি যশোরে ফেসবুকে ধর্মীয় উসকানিমূলক পোস্ট দেয়ায় যুবক গ্রেফতার বিশুদ্ধ আত্মা নিয়ে আমার কাছে এসো: পরীমণি বিএনপির বক্তব্যে মনে হয় কুমিল্লার ঘটনা তারাই ভালো জানে: তথ্যমন্ত্রী প্রতিমন্ত্রী ও উপজেলা চেয়ারম্যানের তিস্তা নদীর ভাঙন এলাকা পরিদর্শন ও ত্রাণ বিতরণ আ’লীগের সা: সম্পাদক মফিজুরের ২নং ঘিবায় নির্বাচনী জনসভা সাম্প্রদায়িক হামলার বিচার হবে ট্রাইব্যুনালে: আইনমন্ত্রী সিরাজদিখানে আনিসুর রহমান রিয়াদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত নোয়াখালীতে সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে গণঅনশন ও বিক্ষোভ

বিশ্বসেরা গবেষকদের তালিকায় ৬ষ্ঠ স্থানে জবির গণিত বিভাগের চেয়ারম্যান

জবি প্রতিনিধি / ২১ বার
আপডেট সময় মঙ্গলবার, ১২ অক্টোবর, ২০২১

অনুপম মল্লিক আদিত্যঃ সম্প্রতি প্রকাশিত বিশ্বসেরা গবেষকদের তালিকায় স্থান করে নিয়েছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের মোট ২১ জন শিক্ষক। সম্প্রতি বিশ্বসেরা গবেষকদের নিয়ে প্রকাশিত এডি সায়েন্টিফিক ইনডেক্স ২০২১-এ থাকা বাংলাদেশের ১ হাজার ৭৮৮ জন গবেষকের মধ্যে স্থান পেয়েছেন তারা।

তালিকায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের মধ্যে ৬ষ্ঠ এবং বাংলাদেশের মধ্যে ৩৬৫ তম স্থানে রয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়টির গণিত বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মো শরিফুল আলম।

তালিকায় স্থান পাওয়া অন্যান্য শিক্ষকরা হলেন, কামরুল আলম, সালেহ আহমেদ, মোহাম্মদ মোশাররফ হোসেন, মোহাম্মদ সায়েদ আলম, সায়েদ তাসনিম তৌওহিদ, দেলোয়ার হোসাইন, এম এ মামুন,কুতুব উদ্দিন, জুলফিকার মাহমুদ, মোহাম্মদ লোকমান হোসাইন, আতিকুল ইসলাম, মোঃ নুরে আলম আব্দুল্লাহ, রাজিবুল আকন্দ, মোহাম্মদ আলী, জাহিদ হাসান, একেএম লুতফর রহমান, জয়ান্ত কুমার সাহা, মোঃ আব্দুল বাকী, পরিমাল বালা এবং মোঃ বায়েজিদ আলী।

র‍্যাংকিংয়ে ১২টি ক্যাটাগরিতে বিশ্বের ২০৬টি দেশের গবেষকদের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। এতে ৭ লাখ ৮ হাজার ৫৬১ জন গবেষক স্থান পেয়েছেন। সায়েন্টিফিক ইনডেক্স গবেষকদের গুগল স্কলারের রিসার্চ প্রোফাইলের বিগত ৫ বছরের গবেষণার এইচ ইনডেক্স, আইটেন ইনডেক্স এবং সাইটেশন স্কোরের ভিত্তিতে র‍্যাংকিংটি প্রকাশ করেছে।

এ বিষয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা পরিচালক অধ্যাপক ড.পরিমল বালা বলেন, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ২১ জন শিক্ষক বিশ্বসেরা গবেষণার তালিকায় স্থান পেয়েছে যেটা আমাদের জন্য গর্বের তবে এই স্থান পাওয়ার যোগ্য আরো অনেক শিক্ষকই আছেন। যারা বিভিন্ন রকমের গবেষণা করেছেন কিন্তু গবেষণা পত্র অনলাইনে আপলোড করেনি বলে তাদের নাম আসেনি। আমরা আশাবাদী যে আগামীতে এই সংখ্যাটা অনেক বেশি হবে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইমদাদুল হক বলেন, এটা আমাদের জন্য সু-সংবাদ যে বিশ্বসেরা গবেষণায় আমাদের এতজন শিক্ষকের নাম এসেছে। আমরা ইতোমধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষনা কার্যক্রম আরো গতিশীল করার জন্য কয়েকটি চুক্তি করেছি কয়েকটা গবেষণা সংস্থার সাথে। ইনশাআল্লাহ, আগামীতে গবেষণায় আরো ভালো ফলাফল আসবে এবং গবেষনার মান আরো উন্নত হবে।





আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিস্তারিত




Theme Created By ThemesDealer.Com