শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১১:৪৯ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক বাতেনের অপসারণ দাবিতে আবারও আন্দোলন ২০ হাজার টাকা বেতনে চালডালে চাকরি যশোরে ফেসবুকে ধর্মীয় উসকানিমূলক পোস্ট দেয়ায় যুবক গ্রেফতার বিশুদ্ধ আত্মা নিয়ে আমার কাছে এসো: পরীমণি বিএনপির বক্তব্যে মনে হয় কুমিল্লার ঘটনা তারাই ভালো জানে: তথ্যমন্ত্রী প্রতিমন্ত্রী ও উপজেলা চেয়ারম্যানের তিস্তা নদীর ভাঙন এলাকা পরিদর্শন ও ত্রাণ বিতরণ আ’লীগের সা: সম্পাদক মফিজুরের ২নং ঘিবায় নির্বাচনী জনসভা সাম্প্রদায়িক হামলার বিচার হবে ট্রাইব্যুনালে: আইনমন্ত্রী সিরাজদিখানে আনিসুর রহমান রিয়াদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত নোয়াখালীতে সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে গণঅনশন ও বিক্ষোভ

শাহজাদপুরে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে ১১ জন আহত, আটক ৪

রিপোর্টারের নাম / ৩৪ বার
আপডেট সময় বুধবার, ৬ অক্টোবর, ২০২১

মোঃ আমিরুল ইসলাম,

শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি: সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে দুই গ্রুপের  সংঘর্ষের এ ঘটনা ঘটেছে। এই ঘটনায় উভয় পক্ষের ১১ জন আহত হয়েছে।

জানা যায়, মঙ্গলবার (৫ অক্টোবর) বেলা ১১টায় উপজেলার রুপবাটি ইউনিয়নের সদামারা গ্রামে পূর্ব বিরোধের জের ধরে ঠান্ডু গ্রুপ ও সোহেল গ্রুপের মধ্যে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষের খবর পেয়ে শাহজাদপুর থানা পুলিশের একটি দল ঘটনা স্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

উল্লেখ্য, ঠান্ডু ও সোহেল উভয়ে সম্পর্কে একে অপরের ভগ্নীপতি ও শ্যালক। এই সংঘর্ষের ঘটনার পর পুরো গ্রাম পুরুষশূন্য হয়ে পড়ে। এসময় বেশ কয়েকটি বাড়ি ঘরে লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে।

সোহেলের ভাবি সেলিনা খাতুন (৩২) বলেন, আমার দেবর ইউসুফ (৩৫) সকাল ১১টায় ঠান্ডু গ্রুপের সমর্থকদের বাড়ি পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় তাকে মারধর করা হয়। তারপর ঠান্ডুর নেতৃত্বে তার গ্রুপের প্রায় ৫০/৬০ জন লোক দেশীয় অস্ত্র নিয়ে অতর্কিতে আমাদের ও আত্মীয়স্বজদের বাড়ি ঘরে মামলা চালায়।
এসময় তাদের ধাড়ালো অস্ত্র ও লাঠির আঘাতে হেলাল (৪০), সাইফুল (৩৪), জাহাঙ্গীর (৩৪), কোমেলা বেগম (৪৫), আতাব মোল্লা (৭৫), সোবাহান (৫৫), সাকিব (১৫) ও সোহেল (৩৫) আহত হয়। হামলাকারীরা বাড়িঘর ভাঙচুর, গবাদি পশু ও টাকা পয়সা লুটপাট করে নিয়ে যায়। পরে আহতদের উদ্ধার করে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে মুমুর্ষ অবস্থায় হেলাল, সাইফুল ও জাহাঙ্গীরকে বগুড়া শহীদ জিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।
ঠান্ডুর ভাই আব্দুল আলীম বলেন, মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় আমার ছোট ভাই জাহাঙ্গীর উত্তরপাড়ায় গেলে সোহেল গ্রুপের লোকজন তার উপর হামলা করে। তার আর্তচিৎকার শুনে আমরা জাহাঙ্গীরকে উদ্ধারের জন্য গেলে সোহেল ও তার লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আমাদের উপর আবারো হামলা করে। পরে আমরা তাদের প্রতিরোধ করি।
তিনি জানান, এই হামলার ঘটনায় আলমগীর, এশাক আলী ও মনোয়ারা গুরুতর আহত হন। তাদের উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ শেখ ফজিলাতুন্নেসা মুজিব ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
এই বিষয়ে শাহজাদপুর থানার ওসি (অপারেশন এন্ড কমিউনিটি পুলিশিং) আব্দুল মজিদ বলেন, সংর্ষের সংবাদ পেয়ে দ্রুত সদামারা গ্রামে পুলিশের একটি দল পাঠানো হয়। তারা গিয়ে আইনশৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে এর ফলে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কমে আসে, এসময় ৪ জনকে আটক করা হয়।
সংঘর্ষের ঘটনায় শফিকুল ইসলাম নামের একজন বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছে।সদামারা গ্রামের পরিস্থিতি বর্তমানে স্বাভাবিক রয়েছে।





আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিস্তারিত




Theme Created By ThemesDealer.Com