শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১১:৪৬ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক বাতেনের অপসারণ দাবিতে আবারও আন্দোলন ২০ হাজার টাকা বেতনে চালডালে চাকরি যশোরে ফেসবুকে ধর্মীয় উসকানিমূলক পোস্ট দেয়ায় যুবক গ্রেফতার বিশুদ্ধ আত্মা নিয়ে আমার কাছে এসো: পরীমণি বিএনপির বক্তব্যে মনে হয় কুমিল্লার ঘটনা তারাই ভালো জানে: তথ্যমন্ত্রী প্রতিমন্ত্রী ও উপজেলা চেয়ারম্যানের তিস্তা নদীর ভাঙন এলাকা পরিদর্শন ও ত্রাণ বিতরণ আ’লীগের সা: সম্পাদক মফিজুরের ২নং ঘিবায় নির্বাচনী জনসভা সাম্প্রদায়িক হামলার বিচার হবে ট্রাইব্যুনালে: আইনমন্ত্রী সিরাজদিখানে আনিসুর রহমান রিয়াদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত নোয়াখালীতে সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে গণঅনশন ও বিক্ষোভ

সাতক্ষীরায় ৩ আদালতে চলাচলের ‘সৌহার্দ্য তোরণ’ উদ্বোধন

রিপোর্টারের নাম / ১৯ বার
আপডেট সময় মঙ্গলবার, ১২ অক্টোবর, ২০২১

আজহারুল ইসলাম সাদী, স্টাফ রিপোর্টার:

সাতক্ষীরায় ৩ আদালতে চলাচলের‘সৌহার্দ্য তোরণ’ উদ্বোধন।

সোমবার (১১ অক্টোবর) সকালে জেলা জজ আদালত হতে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ভবনে যাতায়াতের জন্য নির্মিত সৌহার্দ্য করিডোরের শুভ উদ্বোধন করেন সাতক্ষীরা’র সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান পিপিএম (বার), চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো: হুমায়ূন কবীর, সাতক্ষীরা গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী পরিচালক আবু হায়াত মো: শাফিউল আজম, জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. রেজওয়ান উল্লাহ সবুজ, পিপি এড. আব্দুল লতিফ সহ আইনজীবী, আইনজীবী সহকারী ও বিচারপ্রার্থী মানুষ।

উদ্বোধনকালে সাতক্ষীরার সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান বলেন, বর্তমান সরকারের সংশ্লিষ্ঠ কর্মকর্তাদের আন্তরিক প্রচেষ্টা ও সহযোগিতার কারনেই করিডোরটি দ্রুত নির্মাণ করা আমার পক্ষে সম্ভব হয়েছে। এতে প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে আদালত চত্বরে আগত বিচারপ্রার্থীদের দুর্ভোগই শুধু কমবে না, বিচারবিভাগ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং আইনজীবীদেরও দুর্ভোগ কমবে। তিনি নিজেই এই করিডোর ও তোরণের নাম “সৌহার্দ্য করিডোর” হিসেবে উল্লেখ করেন।

উল্লেখ্য: চীফ জুডিসিয়াল আদালত ভবন নির্মিত হওয়ার পর ২০১৮ সালের ২৫ জানুয়ারি আইনমন্ত্রী মো: আনিসুল হক এটি উদ্বোধন করেন এবং আইনজীবীদের জোরালো দাবীর প্রেক্ষিতে সেদিন তিনি বলেছিলেন ৩০ দিনের মধ্যে এই প্রচীর উঠে যাবে। কিন্তু আমলাতান্ত্রিক জটিলতার কারনে যথাসময়ে তা হয়নি। সেই থেকে আজ পর্যন্ত অনেক রাস্তা ঘুরে বিচারক, বিচারপ্রার্থী মানুষ এবং আইনজীবীদের জেলা জজ আদালত থেকে চীফ জুডিসিয়াল আদালত ভবনে যাওয়াত করতে হতো। ফলে অনেক ভোগান্তির মধ্যে পড়তে হত সকলকেই। দুর্ঘটনায় মারা যাওয়া সহ আহত হন অনেকেই। এনিয়ে আইনজীবীরা এবং নাগরিক সমাজ একাধিকবার পথটি উন্মুক্ত করনের জন্য মানববন্ধন কর্মসূচি সহ আন্দোলন সংগ্রাম করেছেন। কিন্তু কোন ভাবেই ডিসি অফিসের সামনে দিয়ে করিডোর তৈরি করা সম্ভব হয়নি। পরবর্তীতে সাতক্ষীরার সিনিয়র জেলা ও দায়রা শেখ মফিজুর রহমান নিজে থেকে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরে যোগাযোগ করে এবং বিভিন্ন উর্দ্ধতন মহলের সুপারিশের মাধ্যমে দ্রুত করিডোর নির্মানের ব্যবস্থা করেন। এছাড়া করিডোরটির জন্য একটি দৃষ্টি নন্দন গেইট নির্মাণ করেন এবং তিনি নিজেই গেইটটির নাম করণ করেছেন ‘সৌদার্হ্য করিডোর’-যা সাতক্ষীরাবাসী আজীবন স্মরণ করবে বলে তিনি বিশ্বাস করেন।

আনুষ্ঠানিকভাবে করিডোরটি উদ্বোধন হওয়ায় আদালত পাড়ায় আইনজীবী, আইনজীবী সহকারী এবং বিচারপ্রার্থী মানুষের মধ্যে আনন্দের বন্যা বয়ে যায়,

অপরদিকে সাতক্ষীরা জেলা নাগরিক কমিটির আহবায়ক, বিশিষ্ঠ শিক্ষাবিদ ও সাংবাদিক মো: আনিসুর রহিম জানান, এ করিডোরটি অনেক আগেই হওয়া উচিৎ ছিল। দীর্ঘ বিলম্বে হলেও আজ সেটি উদ্বোধন হওয়ায় জেলার নাগরিক কমিটির অন্যতম একটি দাবী বাস্তবায়িত হলো। এর ফলে সাধারণ মানুষ উপকৃত হবে।

সাতক্ষীরা জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এড. শাহ আলম বলেন, সাতক্ষীরাবাসির দীর্ঘ দিনের প্রাণের দাবি পূরণ হয়েছে। আইনজীবী, আইনজীবী সহকারী ও বিচারপ্রার্থী মানুষের জন্য এ করিডোর খুলে দেওয়ার নেপথ্য নায়ক জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান। তার এ অবদানের কথা জেলাবাসি চিরকাল শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ রাখবে।





আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিস্তারিত




Theme Created By ThemesDealer.Com